আবৃত্তিসহ কবিতা : “সুবোধ, তুই পালিয়ে যা”

কবি : আরিফুর রহমান , সোনাডাঙ্গা, খুলনা।

সুবোধ, তুই পালিয়ে যা এক আকাশ তারার সাথে…
এই রোদেলা রাজপথ, স্বর্ণালীভোর, জ্যোৎস্না স্নাত রাতের সুখ–আর তোর নেই।
সবাই তো পালিয়ে বাঁচে
বেঁচে দেয় যার যা বেঁচবার,
কেন তুই বারেবারে ফিরে চাস, উঠে আসিস…
তোর আসাতে কি কারো লজ্জা ভাঙ্গে?
ছানি পরে কি কারো রক্তচক্ষুর ধার কমে? 
যতবার তোকে আঘাত করে পৃথিবী–কেপে ওঠে 
মানুষ নামের নিশ্চিহ্নপ্রায় অভিমানী প্রাণীকূল…
এখনও যারা হাসতে জানে, ভালবাসতে জানে, অবলীলায় উৎসর্গ করতে জানে–যার আছে যা। 
সুবোধ, তুই বুঝিস না কেন? 
তোর বহুচেনা সমাজ আর রক্তাক্ত হতে চায় না।
সমঝোতা, ভাঁজে চলা, তালে হাঁটা আর
ছিনিয়ে নিয়ে বাঁচা উপজাতীয় এ জগতে–তোর আজন্ম চেনা মানুষেরা যে থাকে না। 
এ জগত তোর নতুন নামে পড়তে হবে, বুঝতে হবে, জানতে হবে পুনশ্চ, এখনও তোর অনেক জানা বাকী রে সুবোধ। 
এ জগতে পথভ্রষ্ট দিকপাল নেতৃত্ব থাকতেই পারে
তবে পরিচ্ছদ চকচকে হলে, কোন কথা নাই, 
চোখ বা মন বা উভয়ই কলুষিত হতেই পারে
তবে সুভাষী বা মুখমিষ্টি হলে, কোন কথা নাই, 
বেঈমান আর ঠকবাজ, তাতে কি! তারা বুদ্ধিমান
শুধু অর্থের ঝনঝনানি হলে, কোন কথাই নাই। 
সুবোধ তোর চোখটা ছোট কর, অমন ডাগর চোখে চেয়ে থাকতে নেই, লোকে মূর্খ বলে…
শুধু দেখে যা–ক্যামনে মূর্খরা পুরস্কৃত হয় জ্ঞানীদের মাঝে। 
সুবোধ, তুই বড় বোকা, কেন পারিস না মানতে? 
অর্পণতো তুই ভালই পারিস! তবে এ রোগে কেউ তেমন বাঁচে না রে, শুধু দিন চলে যায় কালের পাতায়।
সুবোধ, তুই পালিয়ে যা একরাশ তারাদের সাথে…
তোর চেনা মেঠোপথ, রাখালের বাঁশী, মেঘ ছোঁয়া প্রেম, অকলঙ্ক জল–আজ আর নেই। 
চারিদিকে শুধু কঙ্কালের ওঠাবসা মনুষ্য বেসে
সুবোধ, তুই পালিয়ে যা পরীদের দেশে।

, ,

Post navigation

2 thoughts on “আবৃত্তিসহ কবিতা : “সুবোধ, তুই পালিয়ে যা”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *